লন্ডনে অবস্থিত বিশ্বের একটি অতি ব্যস্ত বিমানবন্দর ড্রোন কর্তৃক অচল

স্বল্পসংখ্যক ড্রোনের কারণে লন্ডনের অত্যন্ত ব্যস্ত একটি বিমানবন্দর দুদিন ধরে বন্ধ ছিল। গ্যাটউইক বিমানবন্দরে শত শত ফ্লাইট বাতিল করা হয়েছিল সেই সুবাদে হাজার হাজার যাত্রীকে মারাত্মক ভোগান্তি পোহাতে হয়েছে।ড্রোন যেভাবে জনপ্রিয় হয়ে উঠছে, তাতে করে বিমানবন্দরগুলোকে তাদের নিরাপত্তা নিয়ে ভাবতে হচ্ছে।

বুধবার প্রথম গ্যাটউইক বিমানবন্দরের ওপর প্রথম একটি ড্রোন উড়তে দেখা গিয়েছিল। এরপর দুর্ঘটনার ঝুঁকি এড়াতে বিমানবন্দরের রানওয়ে বন্ধ করে দেয়া হয়। গত দুদিন ধরে সেখানে কয়েকটি ড্রোনের রহস্যজনক ওড়াওড়ি ঠেকাতে শেষ পর্যন্ত সেনাবাহিনী পর্যন্ত তলব করা হয়েছে। কিন্তু এখনো পর্যন্ত কে বা কারা এই ড্রোন ওড়াচ্ছিল সেই রহস্য এখনো ভেদ করতে পারেনি ব্রিটিশ কর্তৃপক্ষ। গ্যাটউইক বিমানবন্দরে গত দুদিনে যা ঘটলো, তা আসলে সব বিমানবন্দরকেই এখন ড্রোনের ঝুঁকি নিয়ে আরও গুরুত্বের সঙ্গে ভাবতে বাধ্য করবে”, বলছেন ক্র্যানফিল্ড ইউনিভার্সিটির এরোস্পেসের পরিচালক ইয়ান গ্রাডি।তিনি বলছেন, বিমানবন্দরগুলো এ নিয়ে সচেতন এবং এজন্যে যে ধরণের প্রযুক্তি ভবিষ্যতে দরকার হবে সেটা নিয়ে তারা গবেষকদের সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করতে চায়।

লন্ডনে অবস্থিত বিশ্বের একটি অতি ব্যস্ত বিমানবন্দর ড্রোন কর্তৃক অচল

এ বছরের জুলাই মাসে লন্ডনে একটি নতুন আইন কার্যকর করা হয়, যাতে কোন বিমান বন্দরের এক কিলোমিটারের মধ্যে ড্রোন ওড়ানো নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এছাড়া চারশো ফুটের বেশি উচ্চতায়ও ড্রোন ওড়ানো নিষেধ। তবে বিশেষজ্ঞরা মনে করেন, এই আইন যথেষ্ট নয়। কারণ বিমান যখন অবতরণ করে, তখন এই চারশো ফুট উচ্চতার ওপরে ড্রোন না ওড়ানোর বিষয়টি আসলে আর সেভাবে কার্যকরী নয়। আর যাদের বাজে উদ্দেশ্য আছে, তারা তো আর আইনের তোয়াক্কা করে না।

লন্ডনে অনেক কারাগারের ভেতর মাদক পাচারের জন্য ড্রোন ব্যবহার করা হতো। সেটা ঠেকানোর একটা উপায় তৈরি করেছে কারা কর্তৃপক্ষ। তারা ড্রোন যেন কারাগারের কাছাকাছি আসতে না পারে, সেজন্যে সেখানে রেডিও সিগন্যাল বন্ধ করে দেয়।বিমানবন্দরগুলোকে ড্রোন হামলা থেকে সুরক্ষা দিতে একই ধরণের ব্যবস্থার কথা সুপারিশ করছেন অনেক বিশেষজ্ঞ। রাডার, রেডিও ফ্রিকোয়েন্সি ডিটেক্টর এবং ক্যামেরা ব্যবহার করে এরকম প্রতিরোধ ব্যবস্থা গড়ে তোলা সম্ভব বলে জানাচ্ছে কোয়ান্টাম এভিয়েশন।

Please follow and like us:

Post Reads: 34 Times

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *