অক্টোপাসের সঙ্গে বন্ধুত্ব!

ক্রেগ ফস্টার যখন সাঁতার কাটতেন তখনই অক্টোপাসটি তার পাশাপাশি সাঁতার কাটত! অক্টোপাসকে সমুদ্রের অন্যতম বুদ্ধিমান প্রাণী হিসেবে গণ্য করা হয়! স্তন্যপায়ী এ প্রাণীর মস্তিষ্ক অনেকটা মানুষের মতোই এবং একইভাবে স্মৃতি সংরক্ষণ করে থাকে। ফলে হয়তবা ক্রেগ ফস্টারকে ঐ অক্টোপাসটি মনে রেখেছিল...

আমরা পৃথিবীতে অনেক ধরণের বন্ধুত্বের নজির দেখেছি। কিন্তু কখনও কি কল্পনা করেছেন মানুষের সঙ্গে অক্টোপাসের বন্ধুত্ব হতে পারে! শুনতে একটু অদ্ভুত লাগছে তাই না… আর এই বিচিত্র কাজটি করেছেন দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রেগ ফস্টার নামের এক ব্যক্তি।

সম্প্রতি ক্রেগ ফস্টার এবং রস ফ্রাইলিনক নামের দুই জন সমুদ্রে ডাইভিংয়ের তাদের অভিজ্ঞতা নিয়ে নতুন প্রকাশিত ‘সি চেঞ্জ’ নামের একটি বইয়ে এ তথ্য তুলে ধরেন।

ক্রেগ ফস্টার যখন সাঁতার কাটতেন তখনই অক্টোপাসটি তার পাশাপাশি সাঁতার কাটত! অক্টোপাসকে সমুদ্রের অন্যতম বুদ্ধিমান প্রাণী হিসেবে গণ্য করা হয়! স্তন্যপায়ী এ প্রাণীর মস্তিষ্ক অনেকটা মানুষের মতোই এবং একইভাবে স্মৃতি সংরক্ষণ করে থাকে। ফলে হয়তবা ক্রেগ ফস্টারকে ঐ অক্টোপাসটি মনে রেখেছিল...

দক্ষিণ আফ্রিকার কেপ টাউনে সমুদ্র তীরবর্তী বরফের মত ঠান্ডা জলে  আন্ডারওয়াটার ট্র্যাকিংয়ের সময় একটি অক্টোপাসের সঙ্গে বন্ধুত্ব গড়ে উঠে ক্রেগ ফস্টারের ।

একপর্যায়ে তাদের  বন্ধুত্ব এতটাই গভীর হয় যে ক্রেগ ফস্টার যখন সাঁতার কাটতেন তখনই অক্টোপাসটি তার পাশাপাশি সাঁতার কাটত!

অক্টোপাসকে সমুদ্রের অন্যতম বুদ্ধিমান প্রাণী হিসেবে গণ্য করা হয়! স্তন্যপায়ী এ প্রাণীর মস্তিষ্ক অনেকটা মানুষের মতোই এবং একইভাবে স্মৃতি সংরক্ষণ করে থাকে। ফলে হয়তবা ক্রেগ ফস্টারকে ঐ অক্টোপাসটি মনে রেখেছিল…

ক্রেগ ফস্টার যখন সাঁতার কাটতেন তখনই অক্টোপাসটি তার পাশাপাশি সাঁতার কাটত! অক্টোপাসকে সমুদ্রের অন্যতম বুদ্ধিমান প্রাণী হিসেবে গণ্য করা হয়! স্তন্যপায়ী এ প্রাণীর মস্তিষ্ক অনেকটা মানুষের মতোই এবং একইভাবে স্মৃতি সংরক্ষণ করে থাকে। ফলে হয়তবা ক্রেগ ফস্টারকে ঐ অক্টোপাসটি মনে রেখেছিল...

এ বিষয়ে ক্রেগ ফস্টার বলেছেন, অক্টোপাস তাকে প্রকৃতি সম্পর্কে অনেক কিছু শিখিয়েছে। এটি তার জীবনের অন্যতম সেরা একটি অভিজ্ঞতা।

Please follow and like us:

Post Reads: 387 Times

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *